Unit Price: ৳ 24.00 (30's pack: ৳ 720.00)
Also available as:

নির্দেশনা

প্রুক্যালােপ্রাইড সাকসিনেট সেইসব প্রাপ্তবয়স্কদের দীর্ঘমেয়াদী কোষ্ঠকাঠিন্যের চিকিৎসায় নির্দেশিত যাদের পূর্বে ল্যাক্সেটিভ দিয়ে কোনাে উন্নতি হয়নি।

মাত্রা ও সেবনবিধি

প্রাপ্তবয়স্কদের ক্ষেত্রে: দিনে ২ মিগ্রা একবার খাবার এর পূর্বে অথবা পরে মুখে সেবনযােগ্য। আশানূরূপ ফলের জন্য দিনে ২ মিগ্রা এর বেশী সেবন করা উচিত নয়।

বয়স্ক রােগী: দিনে একবার ১ মিগ্রা দিয়ে আরম্ভ করতে হবে, যদি প্রয়ােজন হয় তাহলে দিনে একবার ২ মিগ্রা পর্যন্ত বাড়ানাে যেতে পারে।

শিশুদের ক্ষেত্রে: প্রুক্যালােপ্রাইড শিশু এবং ১৮ বছর এর কম বয়সীদের ক্ষেত্রে নির্দেশিত নয়।

ঔষধের মিথষ্ক্রিয়া

প্রুক্যালােপ্রাইড এর অন্যান্য ওষুধের সাথে প্রতিক্রিয়া করার ক্ষমতা কম থাকায় এটি সিওয়াইপি দ্বারা মেটাবলাইজড অন্যান্য ওষুধের মেটাবলিজম কে প্রভাবিত করে না। যদিও প্রুক্যালােপ্রাইড গ্লাইকোপ্রােটিন-পি এর একটি দুর্বল ইনহিবিটর, কিন্তু এটি গ্লাইকোপ্রােটিন-পি কে ক্লিনিক্যালি উল্লেখযােগ্য পরিমাণে বাধাগ্রস্ত করে না।

কিটোকোনাজল (২০০ মিগ্রা দুই বার) সিওয়াইপি এবং গ্লাইকোপ্রােটিন-পি এর একটি উল্লেখযােগ্য ইনহিবিটর যেটি প্রুক্যালােপ্রাইড এর মাত্রা ৪০% পর্যন্ত বাড়িয়ে দেয় যেটির মাত্রা ক্লিনিক্যালি উলেখযােগ্য। তাছাড়া, গ্লাইকোপ্রােটিন-পি এর অন্যান্য কিছু ইনহিবিটর যেমন ভেরাপামিল, সাইক্লোস্পােরিন এ এবং কুইনিডিন এর সাথেও এর প্রতিক্রিয়া অনুরূপ।

সুস্থ মানুষদের উপর করা একটি গবেষনায় দেখা গেছে যে, প্রুক্যালােপ্রাইড অন্যান্য কিছু ওষুধ যেমন ওয়ারফেরিন, ডিগােঅক্সিন, প্যারােক্সেটিন এবং অ্যালকোহলের ফার্মাকোকাইনেটিক্স এ কোনাে পরিবর্তন করে না।

প্রতিনির্দেশনা

প্রুক্যালােপ্রাইড অথবা এর কোনাে একটি উপাদানের প্রতি সংবেদনশীল সেইসব রােগীদের প্রতি প্রুক্যালােপ্রাইড প্রতিনির্দেশিত।

পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া

প্রুক্যালােপ্রাইড দিয়ে চিকিৎসাকালীন সময়ে যে সকল পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা যায়, তাদের মধ্যে অন্যতম হলাে, মাথাব্যথা, পরিপাকতন্ত্রের উপসর্গ (তলপেটে ব্যাথা), বমিবমিভাব এবং ডায়রিয়া। পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া গুলাে সাধারণত চিকিৎসা শুরুর প্রাথমিক দিকে দেখা যায় এবং কিছুদিন পর সেগুলাে আর পরিলক্ষিত হয় । বেশীর ভাগ পার্শ্বপ্রতিক্রিয়াই মৃদু থেকে মাঝারী মাত্রায় দেখা যায়।

গর্ভাবস্থায় ও স্তন্যদানকালে

গর্ভাবস্থায়, প্রুক্যালােপ্রাইড এর ব্যবহার অনুমােদিত নয় এবং যে সব নারীরা সন্তান ধারনে সক্ষম, তাদের প্রুক্যালােপ্রাইড ব্যবহারের সময় একটি উপযােগী গর্ভনিরােধ ব্যবস্থা গ্রহন করা উচিত। প্রানীদের উপর করা গবেষনায় গর্ভাবস্থায়, ভ্রূণের বিকাশ অথবা গর্ভপরবর্তী কোনােরুপ বিরুপ প্রতিক্রিয়া দেখা যায় নাই। প্রুক্যালােপ্রাইড দিয়ে চিকিৎসাকালীন সময় স্তন্যদান থেকে বিরত থাকতে হবে।

সতর্কতা

প্রুক্যালােপ্রাইড প্রধানত বৃক্কের মাধ্যমে নিঃসরিত হয়ে থাকে, তাই যে সব রােগীদের বৃক্কীয় কার্যক্ষমতা অনেক দুর্বল তাদের ক্ষেত্রে প্রুক্যালােপ্রাইড এর নির্ধারিত সেবন মাত্রা ১ মিগ্রা।

যে সব রােগীদের যকৃতের কার্যক্ষমতা অনেক দুর্বল (চাইল্ড-পাহ ক্লাস সি) সেসব রােগীদের ক্ষেত্রে প্রুক্যালােপ্রাইড দেওয়ার ক্ষেত্রে সতর্কতা অবলম্বন করা উচিত।

ডায়রিয়ার ক্ষেত্রে সাধারনত মুখে খাওয়া যায় এরূপ জন্ম বিরতিকরণ পিল গুলাের কার্যকারিতা অনেকটা কমে যায়, তাই মুখে খাওয়া যায় এরূপ জন্ম বিরতিকরণ পিল গুলাের কার্যকারিতা ঠিক রাখার জন্য, এর পাশাপাশি একটি অতিরিক্ত জন্ম বিরতি করণ পদ্ধতি ব্যবহার করতে হবে।

এই ট্যাবলেটে ল্যাক্টোজ থাকার দরুন, যেসব রােগীদের জন্মগত গ্যাল্যাক্টোজ ইনটলারেন্স, ল্যাপ ল্যাক্টোজ ডেফিসিয়েন্সি অথবা গ্লুকোজ গ্যালােক্টোজ ম্যালঅ্যাবসরপসন আছে তাদের এই ওষুধ টি নেওয়ার ব্যপারে সতর্কতা অবলম্বন করা উচিৎ।

বিশেষ ক্ষেত্রে ব্যবহার

বৃক্কীয় রােগী: যে সব রােগীদের বৃক্কীয় কার্যক্ষমতা অনেক দুর্বল (জিএফআর <৩০ মিলি/মিনি/১.৭৩ মি), সেসব রােগীদের ক্ষেত্রে ১ মিগ্রা দিনে একবার সেবন করতে হবে।

যকৃতের রােগী: যে সব রােগীদের যকৃতের কার্যক্ষমতা অনেক দুর্বল (চাইল্ড-পাহ ক্লাস সি) সেসব রােগীদের ক্ষেত্রে দিনে একবার ১ মিগ্রা দিয়ে আরম্ভ করতে হবে, এবং আশানূরূপ ফলের জন্য ২ মিগ্রা পর্যন্ত বাড়ানাে যেতে পারে। যাদের যকৃতের অকার্যকরতা মৃদু থেকে মাঝারী তাদের সেবনমাত্রার পরিবর্তন এর প্রয়োজন নেই।

মাত্রাধিক্যতা

প্রুক্যালােপ্রাইড অতিমাত্রায় গ্রহনের ফলে যেসব প্রতিক্রিয়া দেখা যায় সেগুলাের মধ্যে অন্যতম হলাে মাথাব্যথা, বমিবমি ভাব এবং ডায়রিয়া। প্রুক্যালােপ্রাইড এর অতিমাত্রার নির্দিষ্ট কোনাে চিকিৎসা নেই। প্রুক্যালােপ্রাইড এর অতিমাত্রার ক্ষেত্রে উপসর্গ অনুযায়ী যথাযথ চিকিৎসা গ্রহণ করতে হবে। ডায়রিয়া এবং বমি জনিত কারণে যদি ইলেক্ট্রোলাইট এর ঘাটতি হয় তাহলে বাহির থেকে শরীরে ইলেক্ট্রোলাইট দিতে হবে।

থেরাপিউটিক ক্লাস

Osmotic purgatives

সংরক্ষণ

আলাে থেকে দূরে, শুষ্ক স্থানে ও ৩০° সে এর নিচে রাখুন। শিশুদের নাগালের বাইরে রাখুন। শুধুমাত্র সরবরাহকৃত বােতল হতে সেবন করুন এবং যদি বােতলের মুখের সিল ছেঁড়া বা খােলা থাকে, তাহলে ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন।