নির্দেশনা

রসুভাসটাটিন নিম্নোক্ত উপসর্গে নির্দেশিত-
  • হেটেরোজাইগাস হাইপারকোলেস্টেরোলেমিয়া (ফ্যামিলিয়াল এবং নন-ফ্যামিলিয়াল)
  • হোমোজাইগাস হাইপারকোলেস্টেরোলেমিয়া (ফ্যামিলিয়াল)
  • মিক্সড ডিসলিপিডেমিয়া (ফেডরিকসন টাইপ ষষধ এবং ষষন)
  • প্রাথমিক হৃদরোগ প্রতিরোধে

ফার্মাকোলজি

রসুভাসটাটিন HMG-CoA রিডাক্টেজ এনজাইমের সিলেকটিভ ও কমপিটিটিভ ইনহিবিটর। HMG-CoA রিডাক্টেজ একটি গতি নির্দেশক এনজাইম যা ৩-হাইড্রোক্সি ৩-মিথাইল Glutaryl কো-এনজাইম-এ এর মেভালোনেট এ পরিবর্তন ত্বরান্বিত করে। মেভালোনেট কোলেস্টেরলের একটি প্রাথমিক উপাদান। রসুভাসটাটিন দুই ভাবে লিপিড পরিবর্তন করে। প্রথমত, এটি কোষপ্রান্তে হেপাটিক এলডিএল রিসেপ্টরের সংখ্যা বৃদ্ধি করে LDL এর শোষণ ও বিয়োজন ত্বরান্বিত করে। দ্বিতীয়ত, রসুভাসটাটিন যকৃতে VLDL এর সংশ্লেষণ প্রতিরোধ করে যা VLDL ও LDL কণিকার পরিমাণ হ্রাস করে।

ঔষধের মাত্রা

সেবন সীমা: ৫-৪০ মিঃগ্রাঃ দৈনিক একবার। ৪০ মিঃগ্রাঃ শুধু সেসব রোগীর ক্ষেত্রেই ব্যবহার করা যেতে পারে যাদের কাঙ্খিত LDL-C লেভেল ২০ মিঃগ্রাঃ দিয়ে অর্জিত হচ্ছে না।

HoFH
: প্রারম্ভিক মাত্রা দৈনিক ২০ মিঃগ্রাঃ।

শিশু HeFH রোগীদের ক্ষেত্রে
: ৮ থেকে ১০ বছরের কম বয়সের রোগীর ক্ষেত্রে দৈনিক মাত্রা ৫-১০ মিঃগ্রাঃ এবং ১০ থেকে ১৭ বছর বয়সের রোগীদের ক্ষেত্রে দৈনিক মাত্রা ৫-২০ মিঃগ্রাঃ।

শিশু HeFH রোগীদের ক্ষেত্রে
: ৭ থেকে ১৭ বছর বয়েসের রোগীদের ক্ষেত্রে দৈনিক মাত্রা ২০ মিঃগ্রাঃ।

সেবনবিধি

রসুভাসটাটিন দিনের যে কোন সময় খাদ্য গ্রহণের আগে বা পরে গ্রহন করা যেতে পারে।

ঔষধের মিথষ্ক্রিয়া

রসুভাসটাটিন এর উল্লেখযোগ্য ড্রাগ ইন্টার‌্যাকশন হল-
  • সাইক্লোস্পোরিন: এক সাথে ব্যবহারে রসুভাসটাটিনের পরিমাণ বৃদ্ধি করে । রসুভাসটাটিনের মাত্রা দৈনিক ৫ মিঃগ্রাঃ একক মাত্রায় সীমিত রাখা উচিত।
  • জেমফাইব্রোজিল: এক সাথে ব্যবহার এড়িয়ে চলা উচিত। যদি ব্যবহার করা হয়, রসুভাসটাটিনের দৈনিক ১০ মিঃগ্রাঃ একক মাত্রায় সীমিত রাখা উচিত।
  • লাপিনাভির/রিটোনাভির বা এটাজানাভির/রিটোনাভির: এর সাথে ব্যবহার রসুভাসটাটিনের পরিমাণ বৃদ্ধি করে রসুভাসটাটিন দৈনিক ১০ মিঃগ্রাঃ একক মাত্রায় সীমিত রাখা উচিত।
  • কুমারিন এন্টিকোয়াগুলেন্টস: এক সাথে ব্যবহার ইন্টারন্যশনাল নরমালাইজড রেসিও (INR) বাড়িয়ে দেয়। রসুভাসটাটিন শুরু করার আগে স্থিতিশীল আই এন আর অর্জন করা উচিত। রসুভাসটাটিন শুরু বা পরিবর্তন করায় স্থিতিশীল আই এন আর অর্জিত না হওয়া পর্যন্ত নিয়মিত যাচাই করা উচিত।
  • সমসাময়িক লিপিড কমানোর চিকিৎসা নেয়ার ক্ষেত্রে: ফাইব্রেট এবং নিয়াসিন এর সাথে ব্যবহার করার ক্ষেত্রে স্কেলেটাল মাংস পেশীতে প্রভাব বাড়িয়ে দিতে পারে।

প্রতিনির্দেশনা

রসুভাসটাটিন নিম্নলিখিত ক্ষেত্রে প্রতিনির্দেশিত-
  • যদি এর কোন উপাদানের প্রতি সংবেদনশীলতা থাকে।
  • যকৃত রোগ যার অন্তর্ভূক্ত হল ব্যাখ্যাতীত হেপাটিক ট্রান্সঅ্যামিনেজ লেভেল বৃদ্ধি।
  • গর্ভবতী মহিলা ও গর্ভবতী হতে পারে এমন মহিলা।
  • স্তন্যদানকালে।

পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া

রসুভাসটাটিন সাধারণত সুসহনীয়। রসুভাসটাটিন সংশ্লিষ্ট উল্লেখযোগ্য পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া সমূহ হল- মাথা ব্যথা, মায়েলজিয়া, কোষ্ঠকাঠিন্য, এসথেনিয়া, পেটে ব্যথা এবং বমি বমি ভাব।

গর্ভাবস্থায় ও স্তন্যদানকালে

গর্ভাবস্থায় রসুভাসটাটিনের নিরাপত্তা এখনও প্রমাণিত হয়নি। রসুভাসটাটিন মাতৃদুগ্ধে নিঃসৃত হয় কিনা এখনো জানা যায়নি।

সতর্কতা

স্কেলেটাল পেশীতে প্রভাব (যেমন- মায়োপ্যাথি ও র‌্যাবডোমায়োলাইসিস): ৪০ মিঃগ্রাঃ মাত্রা, অধিক বয়স (>৬৫ বছর) হাইপোথাইরয়েডিজম, কিডনী সমস্যা এবং সাইক্লোস্পরিন, লোপিনাভির/রিটোনাভির, এটাজানাভির/রিটোনাভির অথবা কিছু অন্যান্য লিপিড কমানোর ঔষুধের সাথে যৌথ ব্যবহারে ঝুঁকি বাড়িয়ে দিতে পারে। ব্যাখ্যাতীত পেশীতে ব্যথা, নাজুকতা বা দুর্বলতা দেখা দিলে দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ নেয়া উচিত এবং এসব লক্ষণ দেখা দিলে রসুভাসটাটিন সেবন বন্ধ করা উচিত।

লিভার এনজাইম সমস্যা এবং পর্যবেক্ষণ: হেপাটিক ট্রান্সঅ্যামিনেজ এনজাইমের পরিমান বেড়ে যেতে পারে।

চিকিৎসা গ্রহনের আগে এবং চিকিৎসা গ্রহনের সময় লিভার এনজাইমের পরিমাণ পর্যবেক্ষণ করতে হবে।

বিশেষ ক্ষেত্রে ব্যবহার

শিশুদের ক্ষেত্রে নিরাপত্তা ও কার্যকারিতা এখনও প্রতিষ্ঠিত হয়নি।

থেরাপিউটিক ক্লাস

Other Anti-anginal & Anti-ischaemic drugs, Statins

সংরক্ষণ

আলো ও আর্দ্রতা থেকে দূরে, ৩০o সেঃ তাপমাত্রার নীচে রাখুন। শিশুদের নাগালের বাইরে রাখুন।