Unit Price: ৳ 10.03 (30's pack: ৳ 300.90)
Also available as:

নির্দেশনা

বিউটামিরেট সাইট্রেট শুষ্ক কফ (নন-প্রোডাক্টিভ) থেকে মুক্তির জন্য ব্যবহৃত হয়। সাম্প্রতিক কোন ভাইরাল ইনফেকশনের জন্য শুষ্ক কফ হতে পারে। যেকোন কারণে সৃষ্ট তাৎক্ষণিক কফ, শল্য চিকিৎসার আগে ও পরে কফ নিরোধে এবং ব্রংকোস্কোপিতেও বিউটামিরেট সাইট্রেট নির্দেশিত। শ্বাসতন্ত্রের নিম্নাংশের সংক্রমণ (ট্রাকিয়াইটিস, ল্যারিনজাইটিস, ব্রংকাইটিস ইত্যাদি) সৃষ্ট কফ এবং হুপিং কফেও ইহা নির্দেশিত।

ফার্মাকোলজি

কফ দমনে বিউটামিরেট সাইট্রেট মস্তিষ্কের কফ সেন্টারে সরাসরি কাজ করে। বিউটামিরেট সাইট্রেট নিরাপদ এবং নন-সিডেটিভ যা রাসায়নিকভাবে বা ফার্মাকোলজিক্যালি অপিয়াম অ্যালকালয়েডের সাথে সম্পর্কযুক্ত নয়। মুখে খাওয়ার পর ইহা দ্রুত এবং সম্পূর্ণরূপে শোষিত হয়। সাসটেইনড্ রিলিজ ট্যাবলেট এর ক্ষেত্রে ৯ ঘন্টায় সর্বোচ্চ মাত্রায় পৌঁছায়। ইহার প্রোটিন বন্ধন ক্ষমতা বেশী এবং প্লাজমা নিঃসরণ হাফ-লাইফ হচ্ছে ১৩ ঘন্টা। বিউটামিরেট সাইট্রেট এর বিপাকীয় দ্রব্যেরও কফ নিরোধক ক্ষমতা আছে।

মাত্রা ও সেবনবিধি

প্রাপ্ত বয়স্কদের জন্য-
  • বিউটামিরেট সাইট্রেট ৫০ মিগ্রা ট্যাবলেট: ২-৩ টি ট্যাবলেট।
  • বিউটামিরেট সাইট্রেট সিরাপ: ১৫ মিলি করে দিনে ৪ বার।
শিশু ও কিশোর-কিশোরীর ক্ষেত্রে ব্যবহার-
বিউটামিরেট সাইট্রেট ৫০ মিগ্রা ট্যাবলেট:
  • ১২ বছরের বেশী বাড়ন্তদের জন্য: প্রতিদিন ১-২ টি ট্যাবলেট।
বিউটামিরেট সাইট্রেট সিরাপ:
  • শিশু (৩-৬ বছর): ৫ মিলি করে দিনে ৩ বার।
  • শিশু (৬-১২ বছর): ১০ মিলি করে দিনে ৩ বার।
  • বয়ঃসন্ধিকালে: ১৫ মিলি করে দিনে ৩ বার।
বিউটামিরেট সাইট্রেট পেডিয়াট্রিক ড্রপস:
  • শিশু (২মাস-১ বছর): ০.৫ মি. লি. করে দিনে ৪ বার।
  • শিশু (১-৩ বছর): ০.৭৫ মি. লি. করে দিনে ৪ বার। অথবা চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী সেবনযোগ্য।

ঔষধের মিথষ্ক্রিয়া

এক্সপেকটোরেন্ট এর সাথে প্রয়োগ থেকে বিরত থাকতে হবে।

প্রতিনির্দেশনা

কার্যকরী উপাদানের প্রতি অতি সংবেদনশীলতা থাকলে।

পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া

বিউটামিরেট সাইট্রেট খুবই সহনীয়। কখনও কখনও ফুসকুড়ি, বমি বমি ভাব, ঝাপসাভাব এর রিপোর্ট পাওয়া গেছে। মাত্রা কমালে বা ওষুধ সেবন বন্ধ করলে এ সকল প্রতিক্রিয়া দূরীভূত হয়।

গর্ভাবস্থায় ও স্তন্যদানকালে

বিউটামিরেট সাইট্রেট গর্ভবস্থায় প্রথম তিনমাস ব্যবহার করা যাবে না। গর্ভকালীন বাকি সময়ে চিকিৎসকের পরামর্শে সতর্কতার সাথে ব্যবহার করা যেতে পারে। যেহেতু মাতৃদুগ্ধে কার্যকরী উপাদানের নিঃসরণের উপর কোন তথ্য পওয়া যায়নি, সেহেতু সাধারণ নিয়ম অনুযায়ী ওষুধ ব্যবহারে প্রত্যাশিত সুবিধা সম্ভাব্য ঝুঁকি হতে অধিকতর বিবেচিত হলে স্তন্যদানকালে ব্যবহার করা যেতে পারে।

সতর্কতা

বিউটামিরেট সাইট্রেট কাশি দমন করে বিধায় একই সাথে এক্সপেকটোরেন্ট এর ব্যবহার থেকে বিরত থাকা উচিত, যেহেতু এটা শ্বাসনালিতে মিউকাস ধরে রাখতে পারে যা ব্রঙ্কসপাসম এবং শ্বাসযন্ত্রের ইনফেকশনের ঝুঁকি বৃদ্ধি করে। যদি কাশি ৭ দিনেরও বেশি সময় ধরে অব্যাহত থাকে (১২ বছরের কম বয়সী শিশুদের মধ্যে ৩ দিনের বেশি) চিকিৎসকের সাথে পরামর্শ করা উচিত ৷

মাত্রাধিক্যতা

বিউটামিরেট সাইট্রেটের অতিরিক্ত মাত্রায় সেবনের ফলে ঘুমঘুম ভাব, বমি, ডায়রিয়া, ঝাপসাভাব এবং নিম্নরক্তচাপ হতে পারে। প্রচলিত জরুরী ব্যবস্থাদির মধ্যে একটিভেটেড চারকোল, ল্যাক্সোটিভ স্যালাইন দিতে হবে আর প্রচলিত কার্ডিও-রেসপিরেটরি চিকিৎসা দিতে হবে।

থেরাপিউটিক ক্লাস

Cough suppressant

সংরক্ষণ

আলো ও আর্দ্রতা থেকে দূরে, ৩০°সে. তাপমাত্রার নিচে রাখুন। সকল ওষুধ শিশুদের নাগালের বাইরে রাখুন।